সৈয়দপুর ০৬:২৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ৪ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

তোশাখানা দুর্নীতি মামলা

ইমরান খানের কারাদন্ড, পক্ষপাতদুষ্ট রায় বলছে পিটিআই

আন্তর্জাতিক ডেস্কইমরান খান
  • আপডেট সময় : ০৯:৩৭:৪৫ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৫ অগাস্ট ২০২৩ ৪১ বার পড়া হয়েছে

পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান

চোখ২৪.নেট অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ তোশাখানা দুর্নীতি মামলায় পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে তিন বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন দেশটির একটি জেলা ও দায়রা আদালত। এছাড়া তাকে এক কোটি রুপি জরিমানা ও ৫ বছরের জন্য রাজনীতিতে ‘অযোগ্য’ ঘোষণা করা হয়েছে।

শনিবার দণ্ড ঘোষণার পর দুপুরে  পাকিস্তানের লাহোরের জামান পার্কের বাসভবন থেকে ইমরান খান কে গ্রেফতার করা হয়। তবে আদালতের এই রায়কে পক্ষপাতদুষ্ট বলে এক তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে ইমরানের দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই)।

জেলা ও দায়রা আদালতের এই রায়কে প্রত্যাখ্যান করে তারা হাইকোর্টে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছে। এক টুইট বার্তায় এমনটাই জানিয়েছে পিটিআই। দলটি বলছে, তোশাখানা মামলার এই রায় বিচার ব্যবস্থার জন্য কলঙ্ক। পক্ষপাতদুষ্ট হয়ে এমন রায় দেওয়া হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য


তোশাখানা দুর্নীতি মামলা

ইমরান খানের কারাদন্ড, পক্ষপাতদুষ্ট রায় বলছে পিটিআই

আপডেট সময় : ০৯:৩৭:৪৫ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ৫ অগাস্ট ২০২৩

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ তোশাখানা দুর্নীতি মামলায় পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে তিন বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন দেশটির একটি জেলা ও দায়রা আদালত। এছাড়া তাকে এক কোটি রুপি জরিমানা ও ৫ বছরের জন্য রাজনীতিতে ‘অযোগ্য’ ঘোষণা করা হয়েছে।

শনিবার দণ্ড ঘোষণার পর দুপুরে  পাকিস্তানের লাহোরের জামান পার্কের বাসভবন থেকে ইমরান খান কে গ্রেফতার করা হয়। তবে আদালতের এই রায়কে পক্ষপাতদুষ্ট বলে এক তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে ইমরানের দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই)।

জেলা ও দায়রা আদালতের এই রায়কে প্রত্যাখ্যান করে তারা হাইকোর্টে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছে। এক টুইট বার্তায় এমনটাই জানিয়েছে পিটিআই। দলটি বলছে, তোশাখানা মামলার এই রায় বিচার ব্যবস্থার জন্য কলঙ্ক। পক্ষপাতদুষ্ট হয়ে এমন রায় দেওয়া হয়েছে।