সৈয়দপুর ১২:০১ অপরাহ্ন, শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মুজিববর্ষের গৃহ হস্তান্তর উপলক্ষ্যে ডোমারে প্রেস ব্রিফিং

মো: সাহিদুল ইসলাম
  • আপডেট সময় : ১১:৪৮:৫০ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৭ অগাস্ট ২০২৩ ৪১ বার পড়া হয়েছে
চোখ২৪.নেট অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

মো: সাহিদুল ইসলাম, নীলফামারী প্রতিনিধিঃ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক ৪র্থ পর্যায়ের দ্বিতীয় ধাপে নির্মিত মুজিববর্ষের গৃহ হস্তান্তর উপলক্ষ্যে নীলফামারীর ডোমারে প্রেস ব্রিফিং অনুষ্ঠিত হয়েছে। শেষ ধাপের ৪২টি ঘর হস্তান্তরের মাধ্যমে ডোমার উপজেলাকে ভূমিহীন ও গৃহহীন মুক্ত উপজেলা ঘোষণা করার পরিকল্পনা হয়েছে।

সোমবার (৭ই আগস্ট) বেলা সাড়ে ১২টায় ডোমার উপজেলা পরিষদের সম্মেলন কক্ষে উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নাজমুল আলমের সভাপতিত্বে লিখিত বক্তব্য উপস্থাপন করেন—সহকারী কমিশনার (ভূমি) জান্নাতুল ফেরদৌস হ্যাপী।

প্রেস ব্রিফিংয়ে জানানো হয়, আগামী ৯ই আগস্ট সকাল ১০টায় চতুর্থ পর্যায়ের দ্বিতীয় ধাপে ৪২ জন উপকারভোগীর মাঝে গৃহ হস্তান্তর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে ভার্চুয়ালি সংযুক্ত থাকবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেদিনই সারাদেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলার ন্যায় ডোমার উপজেলাকেও ভূমিহীন ও গৃহহীন মুক্ত উপজেলা ঘোষণা করা হবে।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও জানা যায়, ইতোমধ্যে প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক গৃহ হস্তান্তর প্রকল্পে ডোমার উপজেলার জন্য প্রাপ্ত বরাদ্দের প্রথম পর্যায়ে ৩৮টি, দ্বিতীয় পর্যায়ে ৩০০টি, তৃতীয় পর্যায়ে ১৩০টি ও চতুর্থ পর্যায়ে ১৩৯টি সহ ৬০৭টি এবং বাংলাদেশ সেনাবাহিনী কর্তৃক নির্মিত ব্যারাকে ৪০টি পরিবার সহ মোট ৬৪৭টি পরিবারকে পুনর্বাসিত করা হয়েছে। একই সাথে ভূমিহীন ও গৃহহীন মানুষের জন্য ৪ কোটি টাকা বাজারমূল্যের ১৪ একর খাস জমি উদ্ধার করে গৃহনির্মাণের জন্য বরাদ্দ করা হয়েছে।

ডোমার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নাজমুল আলম উদয় বিপিএএ জানান, ডোমার উপজেলায় কোনো গৃহহীন ও ভূমিহীন নাই মর্মে প্রত্যেক ইউনিয়নের চেয়ারম্যানগণ প্রত্যয়ন প্রদান করেছেন। এরপরও যদি প্রাকৃতিক দুর্যোগ বা অন্য কোনো ভাবে গৃহহীন ও ভূমিহীন পরিবার থেকে থাকে, তাদেরকেও যাচাই-বাছাই সাপেক্ষে বিধি মোতাবেক পুনর্বাসনের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

প্রেস ব্রিফিংয়ে ডোমার উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ মাবুদ আলী সহ প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার স্থানীয় সকল সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য


মুজিববর্ষের গৃহ হস্তান্তর উপলক্ষ্যে ডোমারে প্রেস ব্রিফিং

আপডেট সময় : ১১:৪৮:৫০ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৭ অগাস্ট ২০২৩

মো: সাহিদুল ইসলাম, নীলফামারী প্রতিনিধিঃ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক ৪র্থ পর্যায়ের দ্বিতীয় ধাপে নির্মিত মুজিববর্ষের গৃহ হস্তান্তর উপলক্ষ্যে নীলফামারীর ডোমারে প্রেস ব্রিফিং অনুষ্ঠিত হয়েছে। শেষ ধাপের ৪২টি ঘর হস্তান্তরের মাধ্যমে ডোমার উপজেলাকে ভূমিহীন ও গৃহহীন মুক্ত উপজেলা ঘোষণা করার পরিকল্পনা হয়েছে।

সোমবার (৭ই আগস্ট) বেলা সাড়ে ১২টায় ডোমার উপজেলা পরিষদের সম্মেলন কক্ষে উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নাজমুল আলমের সভাপতিত্বে লিখিত বক্তব্য উপস্থাপন করেন—সহকারী কমিশনার (ভূমি) জান্নাতুল ফেরদৌস হ্যাপী।

প্রেস ব্রিফিংয়ে জানানো হয়, আগামী ৯ই আগস্ট সকাল ১০টায় চতুর্থ পর্যায়ের দ্বিতীয় ধাপে ৪২ জন উপকারভোগীর মাঝে গৃহ হস্তান্তর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে ভার্চুয়ালি সংযুক্ত থাকবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেদিনই সারাদেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলার ন্যায় ডোমার উপজেলাকেও ভূমিহীন ও গৃহহীন মুক্ত উপজেলা ঘোষণা করা হবে।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও জানা যায়, ইতোমধ্যে প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক গৃহ হস্তান্তর প্রকল্পে ডোমার উপজেলার জন্য প্রাপ্ত বরাদ্দের প্রথম পর্যায়ে ৩৮টি, দ্বিতীয় পর্যায়ে ৩০০টি, তৃতীয় পর্যায়ে ১৩০টি ও চতুর্থ পর্যায়ে ১৩৯টি সহ ৬০৭টি এবং বাংলাদেশ সেনাবাহিনী কর্তৃক নির্মিত ব্যারাকে ৪০টি পরিবার সহ মোট ৬৪৭টি পরিবারকে পুনর্বাসিত করা হয়েছে। একই সাথে ভূমিহীন ও গৃহহীন মানুষের জন্য ৪ কোটি টাকা বাজারমূল্যের ১৪ একর খাস জমি উদ্ধার করে গৃহনির্মাণের জন্য বরাদ্দ করা হয়েছে।

ডোমার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নাজমুল আলম উদয় বিপিএএ জানান, ডোমার উপজেলায় কোনো গৃহহীন ও ভূমিহীন নাই মর্মে প্রত্যেক ইউনিয়নের চেয়ারম্যানগণ প্রত্যয়ন প্রদান করেছেন। এরপরও যদি প্রাকৃতিক দুর্যোগ বা অন্য কোনো ভাবে গৃহহীন ও ভূমিহীন পরিবার থেকে থাকে, তাদেরকেও যাচাই-বাছাই সাপেক্ষে বিধি মোতাবেক পুনর্বাসনের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

প্রেস ব্রিফিংয়ে ডোমার উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ মাবুদ আলী সহ প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার স্থানীয় সকল সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।