সৈয়দপুর ০৫:৪৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সৈয়দপুরে ট্রেনে কাটা পড়ে হোটেল শ্রমিক নিহত

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৪:০৭:১৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২১ অক্টোবর ২০২২ ১৩ বার পড়া হয়েছে

প্রতীকী ছবি

চোখ২৪.নেট অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

মোঃ মারুফ হোসেন লিয়ন, বিশেষ প্রতিনিধিঃ নীলফামারীর সৈয়দপুরে ট্রেনে কাটা পড়ে একজন নিহত হয়েছেন। শুক্রবার (২১ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে সৈয়দপুর রেল স্টেশনের এক কিলোমিটার দেিন শহরের মধ্যস্থলে ১নং রেলগুমটিতে এই ঘটনা ঘটে। নিহত ব্যক্তির নাম আকবর আলী। তিনি শহরের হাওয়ালদারপাড়া এলাকার মৃত তারাঙ্গনের ছেলে। পেশায় একজন হোটেল শ্রমিক।

নিহতের বড় মেয়ে মোছা. নাহিদ জানান, কয়েকদিন ধরে অসুস্থ ছিলেন বাবা আকবর আলী। আজ সকালে ঘুম থেকে ওঠে নাস্তা করে ফার্মেসী থেকে ওষুধ কেনার উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হন। ওষুধ নিয়ে রেললাইন পার হওয়ার সময় দূর্ঘটনা ঘটে।
প্রত্যদর্শীরা জানান, চিলাহাটি থেকে ছেড়ে আসা খুলনাগামী আন্তঃনগর রুপসা এক্সপ্রেস ট্রেনে এই দূর্ঘটনা ঘটে। এতে কাটা পড়ে দুটি পা বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় এবং মাথা থেতলে যায়। তাঁকে উদ্ধার সৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতালে নেয়া হলে জরুরী বিভাগের চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন।

এ বিষয়ে সৈয়দপুর রেলওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শফিউল ইসলাম জানান, ট্রেন আসতে দেখেও রেললাইন পার হওয়ার কারণে ওই ব্যক্তি আহত হয়। কিন্তু হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর তিনি মারা যাওয়ায় বিষয়টি সৈয়দপুর থানার আওতায় পড়েছে। তাই ঘটনাটি সৈয়দপুর থানাই তদন্ত করবে।

সৈয়দপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম বলেন, অভিযোগ না থাকায় পরিবারের অনুরোধে হাসপাতাল থেকে নিহতের লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। এব্যাপারে একটি অপমৃত্যুর মামলা করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, নিহত আকবরের তিন মেয়ে। বর মেয়ে মোছা. নাহিদ (১৮), মেঝ মোছা. শাবনাম (১৬) ও ছোট মোছা. শায়েলা (১২)। সামান্য অসাবধানতার কারণে একমাত্র উপার্জনম পরিবারের প্রধান ব্যক্তিকে হারিয়ে এবং তিন মেয়েকে নিয়ে চরম অনিশ্চয়তা ও দূরাবস্থার মধ্যে পতিত হলো পরিবারটি।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য


সৈয়দপুরে ট্রেনে কাটা পড়ে হোটেল শ্রমিক নিহত

আপডেট সময় : ০৪:০৭:১৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২১ অক্টোবর ২০২২

মোঃ মারুফ হোসেন লিয়ন, বিশেষ প্রতিনিধিঃ নীলফামারীর সৈয়দপুরে ট্রেনে কাটা পড়ে একজন নিহত হয়েছেন। শুক্রবার (২১ অক্টোবর) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে সৈয়দপুর রেল স্টেশনের এক কিলোমিটার দেিন শহরের মধ্যস্থলে ১নং রেলগুমটিতে এই ঘটনা ঘটে। নিহত ব্যক্তির নাম আকবর আলী। তিনি শহরের হাওয়ালদারপাড়া এলাকার মৃত তারাঙ্গনের ছেলে। পেশায় একজন হোটেল শ্রমিক।

নিহতের বড় মেয়ে মোছা. নাহিদ জানান, কয়েকদিন ধরে অসুস্থ ছিলেন বাবা আকবর আলী। আজ সকালে ঘুম থেকে ওঠে নাস্তা করে ফার্মেসী থেকে ওষুধ কেনার উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হন। ওষুধ নিয়ে রেললাইন পার হওয়ার সময় দূর্ঘটনা ঘটে।
প্রত্যদর্শীরা জানান, চিলাহাটি থেকে ছেড়ে আসা খুলনাগামী আন্তঃনগর রুপসা এক্সপ্রেস ট্রেনে এই দূর্ঘটনা ঘটে। এতে কাটা পড়ে দুটি পা বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় এবং মাথা থেতলে যায়। তাঁকে উদ্ধার সৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতালে নেয়া হলে জরুরী বিভাগের চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন।

এ বিষয়ে সৈয়দপুর রেলওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শফিউল ইসলাম জানান, ট্রেন আসতে দেখেও রেললাইন পার হওয়ার কারণে ওই ব্যক্তি আহত হয়। কিন্তু হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর তিনি মারা যাওয়ায় বিষয়টি সৈয়দপুর থানার আওতায় পড়েছে। তাই ঘটনাটি সৈয়দপুর থানাই তদন্ত করবে।

সৈয়দপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম বলেন, অভিযোগ না থাকায় পরিবারের অনুরোধে হাসপাতাল থেকে নিহতের লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। এব্যাপারে একটি অপমৃত্যুর মামলা করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, নিহত আকবরের তিন মেয়ে। বর মেয়ে মোছা. নাহিদ (১৮), মেঝ মোছা. শাবনাম (১৬) ও ছোট মোছা. শায়েলা (১২)। সামান্য অসাবধানতার কারণে একমাত্র উপার্জনম পরিবারের প্রধান ব্যক্তিকে হারিয়ে এবং তিন মেয়েকে নিয়ে চরম অনিশ্চয়তা ও দূরাবস্থার মধ্যে পতিত হলো পরিবারটি।